Linux Host Lab Ads

কিভাবে আপনার মেসেঞ্জারে ডার্ক মোড ওপেন করবেন দেখে নিন।

Ads by পিসি হেল্প সেন্টার (বাংলাদেশ)

Linux Host Lab Ads

হ্যালো ফ্রেন্ডস কেমন আছেন? আশা করি ভাল আছেন। আমার আজকের পোস্টে আমি মজার বিষয় আপনাদের সাথে শেয়ার করব। বিষয়টি হলো ফেসবুক ডার্ক মেসেঞ্জার।

ফেসবুক ডার্ক মেসেঞ্জার সম্পর্কে হয়তো আপনি জেনে থাকবেন আবার অনেকে আছে যা জানেন না এখনো। আপনি যদি এখনো না জেনে থাকেন তাহলে আপনি আমার এই টিউটোরিয়ালটি দেখে নিন। ফেসবুক সম্প্রতি তাদের এ ফিচারটি মেসেঞ্জারে অ্যাড করেছে।

আপনি যখন ডার্ক মোড অন করবেন তখন আপনার ফেসবুক মেসেঞ্জার টা সম্পূর্ণ কালো রঙের হয়ে যাবে। সাধারণত আমরা ফেসবুকের যে মেসেঞ্জার টি ব্যবহার করি তা মূলত নীল রঙের হয়ে থাকে। ডার্ক মোড অন করে রাখলে আপনার ম্যাসেঞ্জারে রংটি কালো হয়ে যাবে। এই অপশনটি অনেকে চালু করতে পেরেছেন আবার অনেকে পারেন নি। যারা এখনো পারেননি তাদের জন্য আমার এই পোস্ট টি।

Ads by পিসি হেল্প সেন্টার (বাংলাদেশ)

Linux Host Lab Offer

চলুন তাহলে শুরু করি। প্রথমে আপনি আপনার ফেসবুকের মেসেঞ্জার এ লগইন করুন। লগইন করার পর আপনার পরিচিত কারো প্রোফাইলে ঢুকুন মেসেজ করার জন্য। আমরা কাউকে মেসেজ পাঠানোর সময় কিছু ইমোজি পাঠানোর অপশন পেয়ে থাকে। আপনি ওই ইমোজি অপশনে ক্লিক করুন। ইমোজি অপশনে ক্লিক করার পর নিচ থেকে দেখুন তিন নাম্বারে পশুর ছবি যুক্ত কতগুলো ইমোজি আছে। আপনি যখন আইকন গুলোকে একটু নিচের দিকে টানবেন তখন দেখবেন একটি চাঁদের ইমোজি আছে। এখন আপনি চাঁদের ইমোজি টি আপনার পরিচিত জনকে পাঠান। আপনি যখন চাঁদের ইমোজিটি পাঠাবেন সাথে সাথে আপনাকে কতগুলা ইমোজি দেখাবে এবং সাথে আপনাকে একটা নোটিফিকেশন দিয়ে বলে দিবে যে আপনার ডার্ক মোড টি ওপেন করতে পারবেন। এরপর আপনি আপনার ম্যাসেঞ্জারে ছবির উপর ক্লিক করে আপনার প্রোফাইলে ঢুকুন। এখন আপনি আপনার প্রোফাইলে আপনার ছবির নিচে ডার্ক মোড অপশনটি দেখতে পাবেন। এখানে মোডটি অফ অবস্থায় থাকে। আপনি যখনই এখান থেকে অপশনটি অন করে দিবেন তখন থেকে আপনার মেসেঞ্জার টি সম্পূর্ণ ডার্ক মোডে হয়ে যাবে। ঠিক একইভাবে আপনি চাইলে এটি আবার ডিজেবল করে দিতে পারবেন।

আপনি যদি কোন কিছু না বুঝে থাকেন এই বিষয়ে আমার একটা ভিডিও আছে নিচে আমি ভিডিও টি শেয়ার করলাম আপনি সেখান থেকে ভিডিওটি দেখে নিতে পারেন। আর চাইলে আমার চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করে রাখতে পারেন।

Ads by পিসি হেল্প সেন্টার (বাংলাদেশ)

Leave a Reply