উদ্ভিদের খাদ্য উপাদানের কাজ (১ম পর্ব)

Linux Host Lab Ads

নাইট্রোজেনের কাজঃ

  • উদ্ভিদের অঙ্গজ বৃদ্ধি ত্বরান্বিত করে।
  • পাতার জন্য যেসব উদ্ভিদ চাষ করা হয় তার জন্য নাইট্রোজেন খুবই গুরুত্বপূর্ণ।
  • নাইট্রোজেন কান্ড ও পাতার রং গাঢ় সবুজ করে।
  • শস্যের উৎপাদন উল্লেখযোগ্য পরিমাণে বাড়ায়।
  • দানা জাতীয় শস্যে প্রোটিনের পরিমাণ বাড়ায়।
  • কুশির সংখ্যা বাড়াতে সাহায্য করে।
  • পাতা ও ফলের আকার বড় করে।
  • দানা এবং ঘাস জাতীয় শস্যের দানা ভরপুর করে তোলে।

ফসফরাসের কাজঃ

  • উদ্ভিদের কোষ বিভাজনে অংশ নেয়।
  • নাইট্রোজেন সহযোগে উদ্ভিদের বৃদ্ধি ত্বরান্বিত করে।
  • উদ্ভিদের মূল শক্তিশালী করে ও বিস্তার ঘটায়।
  • গাছে সময়মত ফুল ধর্
  • ফুলের আকার বড় হয় এবং ফুল ফল ঝরে পড়ে না।
  • ফলের সংখ্যা বেশি হয়, আকার বড় হয় এবং ফলের গুণগত মান ভাল হয়।
  • গাছে ফসফোলিপিড উৎপাদন করে।

পটাশিয়ামের কাজঃ

Linux Host Lab Offer
  • উদ্ভিদের অভ্যন্তরে শর্করা দ্রব্য ও অন্যান্য জৈব রাসায়নিক দ্রব্য চলাচলে সহায়তা করে।
  • উদ্ভিদের নাইট্রোজেন ও ফসফরাস গ্রহণে সাহায্যে করে।
  • পটাশিয়াম উদ্ভিদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।
  • উদ্ভিদের কোষ বিভাজন ঘটিয়ে গাছকে দ্রুত বড় হতে সাহায্য করে।
  • উদ্ভিদের পাতায় শর্করা দ্রব্য তৈরিতে সাহায্য করে।
  • উদ্ভিদের খরা প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

ক্যালশিয়ামের কাজঃ

  • উদ্ভিদ কোষের প্রাচীর গঠনে অংশগ্রহণ করে।
  • কোষ বিভাজন হার বাড়ায়।
  • গাছের কাঠামো শক্ত করে।
  • উদ্ভিদ কোষের স্থিতিস্থাপকতা নিয়ন্ত্রণ করে।
  • গাছের ধনাত্মক আয়নের পরিমাণ ব্যালেন্স করে।
  • ডাল জাতীয় ফসলের দানা গঠনে সাহায্য করে ও ফলন বাড়ায়।
  • শস্য বীজের বহিঃত্বক দৃঢ় করে।
  • ফসলের মিষ্টতা ও স্বাদ বাড়ায়।
  • গাছের নেতিয়ে পড়া বন্ধ করে।
  • গাছের শিকড় কাঠামো শক্ত ও বিস্তৃত করে।

ম্যাগনেশিয়ামের কাজঃ

  • ম্যাগনেশিয়াম সরাসরি সালোক-সংশ্লেষণের হার বাড়ায়।
  • ম্যাগনেশিয়াম ক্লোরোফিলের অংশ, ক্লোরোফিলের রাসায়নিক সংকেতের অংশ হিসেবে ম্যাগনেশিয়াম আয়ন রয়েছে।
  • ম্যাগনেশিয়াম আম সহ অন্যান্য ফলের মিষ্টতা,স্বাদ ও সংরক্ষণ গুণ বাড়ায়।
  • গোল আলুর উৎপাদন বৃদ্ধিতে ম্যাগনেশিয়াম সক্রিয় ভূমিকা পালন করে।
  • চারা গাছের দ্রুত বৃদ্ধির জন্য ম্যাগনেশিয়াম অপরিহার্য।
  • ম্যাগনেশিয়াম ডাল ফসল ও আখের ফলন বাড়ায়।
  • ম্যাগনেশিয়াম শাক-সবজির গুণাগুণ ভাল করে।
  • ম্যাগনেশিয়াম কমলার মিষ্টতা বাড়ায়।
  • ফুল ও ফুল বড় করতে ম্যাগনেশিয়াম ভূমিকা পালন করে।
  • ম্যাগনেশিয়াম গাছের বিপাকীয় কাজে সহায়তা করে।

সালফারের কাজঃ

  • সালফার আমিষ তৈরিতে অংশগ্রহণ করে।
  • সালফার উদ্ভিদের বৃদ্ধি ঘটায় ও ত্বরান্বিত করে।
  • সালফার এনজাইম তৈরি করে এনজাইম বিক্রিয়া ত্বরান্বিত করে।
  • সালফার তৈলবীজ জাতীয় ফলন উৎপাদন বাড়ায়।
  • সালফার সরিষার তৈল, পেঁয়াজ, রসুন ও মসলার নির্দিষ্ট স্বাদ ও ঝাঁঝ বাড়ায়।
  • চিনাবাদাম ও ডাল ফসলের গাছের শিকড়ে নডিউল উৎপাদন বাড়ায়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ক্যাপচাটি লিখুন * Time limit is exhausted. Please reload CAPTCHA.